সেদিন ড্রেসিংরুমে তামিমের সঙ্গে যে পরিকল্পনা করেন মাশরাফি ?


এশিয়া কাপে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ব্যান্ডেজ করা হাত নিয়ে ব্যাটিংয়ে নেমে ক্রিকেট বিশ্বে মাঝে এক তোলপাড় সৃষ্টি করেছেন বাংলাদেশের ড্যাশিং ওপেনার তামিম ইকবাল খাঁন। সবাই তার এই লড়াকু মানসিকতার প্রশংসা করছেন।

যদিও নিজের ইচ্ছায় ব্যাটিংয়ে নেমেছিলেন, তবে এ কাজে জন্য তাকে প্রথমে সাহস যুগিয়েছিলেন টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। তিনি স্লিংয়ে হাত ঝুলিয়ে বসে থাকা টাইগার ওপেনার তামিমকে ডেকে অনুরোধ করেন ব্যাটিংয়ে নামার জন্য। তবে মাশরাফির পরিকল্পনা ছিল বেশ যুক্তিকর।

মাশরাফি তামিমকে বলেন, মুস্তাফিজ যদি আউট হয়ে যায়, তাহলে মুশফিককের সঙ্গ দেওয়ার জন্য তুই আবার ব্যাটিংয়ে যাস। কিন্তু মুস্তাফিজ আউট হওয়ার পর তামিমকে তো বল ও ফেস করতে হতে পারে। বিষয়টা ঝুঁকিপূর্ণ ভেবে সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করেন অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা । তখন মাশরাফি বলেন, ঝুঁকি নেওয়ার দরকার নেই। মুস্তাফিজ আউট হলে মুশফিক যদি স্ট্রাইকে থাকে তাহলে যাস।

এরপর আঙ্গুল বের করে রাখার জন্য তামিমের হাতের গ্লাভস কেটে দেন এবং তামিমকে প্যাড পরিয়ে দেন অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা।

যদিও ক্রিজে যেতে তাকে কোচ ও ফিজি নিষেধ করেছিলেন। তবে মুস্তাফিজ যখন আউট হয় তারপর শুধু মাত্র ওই ওভারে একটি বল বাকি দেখলেন তখনই তামিম নিজেই বলে উঠলেন আমি পারব। এরপর তো এক হাত দিয়ে ব্যাট করে ইতিহাস গড়ে ফেলেছেন টাইগার ড্যাশিং ওপেনার তামিম ইকবাল।

কোন মন্তব্য নেই

Blogger দ্বারা পরিচালিত.